গোয়াইনঘাটে শিক্ষার্থীদের মাঝে মাস্ক ও হ্যান্ড স্যানিটাইজার বিতরণ

গোয়াইনঘাট প্রতিনিধি: | ১২ সেপ্টেম্বর ২০২১ | ৪:৪১ অপরাহ্ণ
অ+ অ-

দীর্ঘ ১৭ মাস ২৪ দিন বন্ধ থাকার পর রোববার (১২ সেপ্টেম্বর) থেকে খুলে দেওয়া হয়েছে দেশের সকল শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান। শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে দেয়ায় করোনা সংক্রমণ মোকাবেলা ও স্বাস্থ্যবিধি রক্ষায় সিলেটের গোয়াইনঘাট উপজেলার গুচ্ছগ্রাম প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শিক্ষার্থীদের মাঝে মাস্ক ও হ্যান্ড স্যানিটাইজার বিতরণ করা হয়েছে।

রোববার সকালে করোনা সুরক্ষায় সরকারি নির্দেশনা মেনে গুচ্ছগ্রাম প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ক্লাস কার্যক্রম চালু ও শিক্ষার্থীদের মাঝে মাস্ক ও হ্যান্ড স্যানিটাইজার বিতরণ করা হয়।



এ সময় উপস্থিত ছিলেন ট্যুরিস্ট পুলিশ জাফলং জোনের ইনচার্জ মোঃ রতন শেখ, গুচ্ছগ্রাম প্রাথমিক বিদ্যালয় ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি ও গোয়াইনঘাট প্রেসক্লাবের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মো. করিম মাহমুদ লিমন, ট্যুরিস্ট পুলিশ জাফলং জোনের এসআই জসিম উদ্দিন, গুচ্ছগ্রাম প্রাথমিক বিদ্যালয় ম্যানেজিং কমিটির সহ-সভাপতি আব্দুল মান্নান, বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক সোহেল আহমেদ, সহকারী শিক্ষক রাসেল আহমেদ সিফাত, জাফলং ট্যুরিস্ট গাইড এন্ড স্টুডিও মালিক সমিতির সভাপতি মুহিবুর রহমান মুহিব, অর্থ সম্পাদক জাহাঙ্গীর আলম, জাফলং ট্যুরিস্ট গাইড ও ফটোগ্রাফার সমবায় সমিতির সভাপতি নিলয় পারভেজ সোহেল, সহকারি শিক্ষিকা সালমা বেগম, আনোয়ারা আক্তার আনু, সুমা আক্তার, সুমি আক্তার, শিক্ষক ইসলাম উদ্দিন প্রমুখ।

শিক্ষার্থীদের মাঝে মাস্ক ও হ্যান্ড স্যানিটাইজার বিতরণ শেষে ট্যুরিস্ট পুলিশ জাফলং জোনের ইনচার্জ মোঃ রতন শেখ বলেন এই করোনা ভাইরাস সম্পর্কে এখনো মানুষের মধ্যে সচেতনতা তৈরি হয়নি। স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার ক্ষেত্রে অনীহা এই সংক্রমণ বাড়িয়ে দিচ্ছে। এ অবস্থায় আচরণগত পরিবর্তন প্রয়োজন। কোমলমতি শিশুদের করোনা সংক্রমণ থেকে বাঁচাতে ও নিজে ও নিজের সন্তানদের করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে ব্যক্তিগত সচেতনতার কোনো বিকল্প নেই। এই পরিস্থিতিতে স্বাস্থ্য সংস্থা কতৃক সুপারিশমালা মেনে চলার জন্য শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোর পরিচালনা পরিষদ, শিক্ষক-শিক্ষিকা ও অভিভাবকদের অনুরোধ জানান তিনি।

Comments

comments

পড়া হয়েছে 67 বার
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
x