সোমবার ৬ ডিসেম্বর, ২০২১ | ২১ অগ্রহায়ণ, ১৪২৮

চলমান সংকটে রোহিঙ্গাদের দায়ী করায় মুকুট হারালেন মিয়ানমার সুন্দরী

আন্তর্জাতিকপ্রতিবেদক,সংবাদমেইল২৪.কম | মঙ্গলবার, ০৩ অক্টোবর ২০১৭ | প্রিন্ট  

চলমান সংকটে রোহিঙ্গাদের দায়ী করায় মুকুট হারালেন মিয়ানমার সুন্দরী

রাখাইনের চলমান সঙ্কট নিয়ে আরাকান রোহিঙ্গা স্যালভেশন আর্মিকে (আরসা) একতরফা দায়ী করে বক্তব্য দেয়ার জন্য নিজের পুরস্কার হারিয়েছেন মিস ইউনিভার্স মিয়ানমার-২০১৭ প্রতিযোগিতার প্রথম রানার্স আপ সোয়ে ইয়েন সি। সেই সঙ্গে মিস গ্রান্ড মিয়ানমার হিসেবে ভিয়েতনামে অনুষ্ঠিতব্য মূল প্রতিযোগিতায় তার অংশগ্রহণ বাতিল করা হয়েছে।

রাখাইনের সহিংসতা নিয়ে একটি ভিডিও বার্তা প্রকাশ করেন ১৯ বছর বয়সী সোয়ে ইয়েন। সেখানে তিনি দাবি করেন, আরসা ইসলামিক-সম্প্রসারণবাদী সংগঠন। যারা আন্তর্জাতিক সমর্থন পেয়ে বেসামরিক নাগরিকদের ওপর হামলা করছে এবং প্রতারণার মাধ্যমে গণমাধ্যমের সহানুভূতি নিচ্ছে।


মিয়ানমারের সেনাবাহিনীর নির্যাতনের শিকার হয়ে সাম্প্রতিক সময়ে যে পাঁচ লাখ রোহিঙ্গা বাংলাদেশে আশ্রয় নিয়েছে সে সম্পর্কে কিছু বলেননি এই মিয়ানমার সুন্দরী। সেই সঙ্গে তিনি বিশ্ব সম্প্রদায়কে আহ্বান জানিয়েছেন, তারা যেন ঘটনাস্থলে গিয়ে পক্ষপাতহীনভাবে পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করে।

তিন মিনিট ৪১ সেকেন্ডের এই ভিডিওটি প্রকাশের পর সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে ভাইরাল হয়ে যায়। ভিডিওটির কারণে মিস ইউনিভার্স মিয়ানমার প্রতিযোগিতার আয়োজকরা তার পুরস্কার কেড়ে নিয়েছে বলে রোববার জানায় সোয়ে ইয়েন। আয়োজকদের পক্ষ থেকে হয়েছে তাকে দেয়া মুকুট, উত্তরীয়, পুরস্কারের অর্থ এবং ট্রফি এসব কিছুই ফেরত দিতে হবে।


তবে মিয়ানমারে সোয়ে ইয়েনের জনপ্রিয়তা বৃদ্ধি পেয়েছে। রোহিঙ্গাদের বিরুদ্ধে সেনাবাহিনীর কথিত সন্ত্রাস বিরোধী অভিযানকে যারা সমর্থন করছেন তারা সোয়ে ইয়েনের প্রশংসা করছেন।

 


সংবাদমেইল/জেএইচজি

Facebook Comments Box

Comments

comments

advertisement

Posted ৩:০০ অপরাহ্ণ | মঙ্গলবার, ০৩ অক্টোবর ২০১৭

সংবাদমেইল |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

সম্পাদক ও প্রকাশক : মো. মানজুরুল হক

নির্বাহী সম্পাদক: মো. নাজমুল ইসলাম

বার্তা সম্পাদক : শরিফ আহমেদ

কার্যালয়
উপজেলা রোড, কুলাউড়া, মেলভীবাজার।
মোবাইল: ০১৭১৩৮০৫৭১৯
ই-মেইল: sangbadmail2021@gmail.com

sangbadmail@2016 কপিরাইটের সকল স্বত্ব সংরক্ষিত