মঙ্গলবার ৭ ডিসেম্বর, ২০২১ | ২২ অগ্রহায়ণ, ১৪২৮

কমলগঞ্জে চা বাগানে শ্রমিকদের কর্মবিরতি

বিশেষ প্রতিনিধি,সংবাদমেইল২৪.কম | শনিবার, ২১ জানুয়ারি ২০১৭ | প্রিন্ট  

কমলগঞ্জে চা বাগানে শ্রমিকদের কর্মবিরতি

মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জ উপজেলার মাধবপুর ইউনিয়নের ন্যাশনাল টি কোম্পানী (এনটিসি)র মদমোহনপুর চা বাগানে অস্থায়ী  চা শ্রমকিদের কাজে স্থায়ীকরণ ও ব্যবস্থাপকসহ এক কর্মচারীকে অপসারণের দাবিতে চা শ্রমিকরা সাত ঘন্টা কর্মবিরতি পালন করে।

(২১ জানুয়ারী) শনিবার সকাল সাতটা থেকে মদনমোহনপুর চা বাগানের শ্রমিকরা সাত ঘন্টা পর বেলা দুইটায় কমবিরতি প্রত্যাহার করেন।


মদনমোহনপুর চা বাগান পঞ্চায়েত সভাপতি  উমা শঙ্কর গোয়ালা, সাধারন সম্পাদক আদিত্য চাষা অভিযোগ করে বলেন, গত ২৫ থেকে  ৩০ বছর ধরে এ বাগানে বেশ কিছু চা শ্রমিক দৈনিক মজুরী ভিত্তিতে অস্থায়ী শ্রমিক হিসাবে কাজ করছে। তাদেরকে এখন পর্যন্ত চা বাগানের স্থায়ী শ্রমিক হিসাবে নিয়োগ দেওয়া হয়নি। অথচ চা বাগান ব্যবস্থাপক শফিকুর রহমান ও হেড টিলা বাবু জয় প্রকাশ কৈরী মিলে তাদের পছন্দের অস্থায়ী শ্রমিকদের স্থীয়করণ করেছেন। তাছাড়া চা বাগান কর্তপক্ষের গাফিলতিতে শুক্রবার এক নারী শ্রমিকের গর্ভজাত সন্তান মারা গেছে।

তারা আরও বলেন, তাই বাধ্য হয়ে প্রধান ব্যবস্থাপক শফিকুর রহমান ও টিলা বাবু জয় প্রকাশ কৈরীর অপসারণ দাবি করে শনিবার সকাল থেকে মদনমোহনপুর চা বাগানের প্রায় সাড়ে চার ’শ চা শ্রমিক কারখানা ও অফিসের সামনে অবস্থান নিয়ে কর্মবিরতি পালন করে। এক সময় আন্দোলনকারী চা শ্রমিকরা চা বাগান ব্যবস্থাপক শফিকুর রহমান ও টিলা বাবু জয় প্রকাশ কৈরীকে মদনমোহনপুর চা বাগানে থেকে বের করে দেয়।


খবর পেয়ে এনটিসি’র মালিকানাধীন পার্শ্ববর্তী পাত্রখোলা, মাধবপুর, কুরমা ও চাম্পরায় চা বাগান ব্যবস্থাপকরা ও কোম্পানীর ডিজিএম মোহাম্মদ শাহজাহান ঘটনাস্থলে আন্দোলনকারী চা শ্রমিকদের সাথে আলোচনায় বসেন। তাছাড়া কমলগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ মাহমুদুল হকের নির্দেশে মাধবপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান পুষ্প কুমার কানু চা বাগান কর্তৃপক্ষকে নিয়ে আন্দোলনকারী চা শ্রমিকদের সাথে আলোচনায় বসেন।

আলোচনায় মদনমোহনপুর চা বাগানের ব্যবস্থাপক শফিকুর রহমান, টিলা বাবু জয় প্রকাশ কৈরীকে দ্রুত অন্য চা বাগানে বদলি করে নেওয়ার আশ্বাস প্রদান করলে সাত ঘন্টা পর বেলা দুইটায় আন্দোলনকারী চা শ্রমিকরা কর্মবিরতি প্রত্যাহর করে।


মদনমোহনপুর চা বাগানের পঞ্চায়েত সাধারন সম্পাদক আদিত্য চাষা কর্মবিরতি প্রত্যাহের সত্যতা স্বীকার করে বলেন, চা বাগান ব্যবস্থাপনা পর্ষদ  ব্যবস্থাপক ও টিলা বাবুকে আগামী বুধবারের মধ্যে ব্যবস্থাপকসহ কর্মচারী এই চা বাগান থেকে তাদের ব্যবহারী মালামাল নিয়ে অন্যত্র চলে যাবেন।

তবে মদনমোহনপুর চা বাগানের ব্যবস্থাপক শফিকুর রহমান বলেন, চা বাগানের বিধি মোতাবেক কাজের দক্ষতার উপর ভিত্তি করে অস্থায়ী চা শ্রমিকদের স্থায়ীকরণ করা হয়। তাও আবার ঢাকাস্থ প্রধান কার্যালয় এসব বিষয় দেখে অস্থায়ী চা শ্রমিকদের স্থায়ী করণ করে। এখানে তার বা প্রধান টিলা বাবুর করার কিছু নেই।

সংবাদেমইল২৪.কম/জেএ/এনএস

Facebook Comments Box

Comments

comments

advertisement

Posted ৬:৫৬ অপরাহ্ণ | শনিবার, ২১ জানুয়ারি ২০১৭

সংবাদমেইল |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

এ বিভাগের আরও খবর

সম্পাদক ও প্রকাশক : মো. মানজুরুল হক

নির্বাহী সম্পাদক: মো. নাজমুল ইসলাম

বার্তা সম্পাদক : শরিফ আহমেদ

কার্যালয়
উপজেলা রোড, কুলাউড়া, মেলভীবাজার।
মোবাইল: ০১৭১৩৮০৫৭১৯
ই-মেইল: sangbadmail2021@gmail.com

sangbadmail@2016 কপিরাইটের সকল স্বত্ব সংরক্ষিত