সিলেট-আখাউড়ায় ১৬টি আধুনিক রেলস্টেশন হবে: রেলমন্ত্রী

স্টাফ রিপোর্টার,সংবাদমেইল২৪.কম | ২৬ জুন ২০১৯ | ৫:৪৯ অপরাহ্ন
অ+ অ-

মৌলভীবাজারের কুলাউড়ার বরমচালে ট্রেন দুর্ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে রেলমন্ত্রী নুরুল ইসলাম সুজন বলেছেন, আখাউড়া-সিলেট রুটের এই মিটারগেজ লাইন পুরাতন হওয়াতে এক লাইন থেকে আরেক লাইন সরে দুর্ঘটনা ঘটেছে। তাই শিগগিরই এই রুটকে ডাবলগেজ করা হবে।

বুধবার (২৬ জুন) দুপুর ১টার দিকে মন্ত্রী বরমচাল পৌঁছে স্থানীয়দের আয়োজিত এক সভায় এ কথা বলেন। এর আগে তিনি দুর্ঘটনা কবলিত এলাকার রেল লাইন ও দুর্ঘটনায় পতিত উপবন এক্সপ্রেসের বগিগুলো পরিদর্শন করেন।



এসময় তিনি বলেন, রেল দুর্ঘটনার বিষয় খতিয়ে দেখতে ইতোমধ্যে দু’টি কমিটি করে দিয়েছি। কমিটির প্রতিবেদনের ভিত্তিতে আমরা ব্যবস্থা গ্রহণ করবো। আপাতত প্রধানমন্ত্রী নির্দেশে প্রত্যেক নিহত পরিবারকে এক লক্ষ টাকা ও আহত পরিবারকে ১০ হাজার টাকা অনুদান দেওয়া হয়েছে। সরকারের অন্যান্য বিভাগ থেকে তাদের আরো সহায়তা দেওয়া হবে।

মন্ত্রী আরো বলেন, প্রধানমন্ত্রী বলেছেন বাংলাদেশকে উন্নত রাষ্ট্র হিসেবে প্রমাণ করতে হলে রেলের উন্নয়ন করতে হবে। যে দেশ যত উন্নত সেই দেশের রেলযোগাযোগ তত উন্নত। সেজন্য আমরা আখাউড়া-সিলেট রুটের সংস্কার, সকল পুরাতন ব্রিজ ভেঙে নতুন ব্রিজ নির্মাণ ও ডাবলগেজ করার জন্য ১৬ হাজার কোটি টাকা ব্যয়ের প্রকল্প হাতে নেওয়া হয়েছে।

এর আগে মন্ত্রী বলেন, দীর্ঘদিন ধরে অবহেলিত ছিল এই রেল বিভাগ। আওয়ামী লীগ সরকার ক্ষমতায় আসার পর রেলপথের উন্নয়নে হাত দিয়েছে। তাছাড়া দুর্ঘটনার পর রেলসচিবসহ কর্মকর্তারা ঘটনাস্থলে এসেছেন। মাত্র ২২ ঘণ্টার মধ্যে রেল যোগাযোগ স্বাভাবিক হয়েছে। তবে ব্রিজ ভেঙে দুর্ঘটনা হয়নি। এক লাইন থেকে আরেক লাইন সরে দুর্ঘটনা হতে পারে।

তিনি বলেন, রেল এমন একটি বাহন। যে দেশে রেল যত উন্নত, সে দেশ তত উন্নত। রেলকে যতবেশি বাণিজ্য ও গণপরিবহনে ব্যবহার করতে পারবো, সড়ক ততো নিরাপদ থাকবে।

পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন বিষয়ক মন্ত্রী মো. শাহাব উদ্দিন বলেন, রেল ও রোড দু’টিকে নিরাপদ রাখতে আমরা পদক্ষেপ নিয়েছি। এ ধরনের অনাকাঙ্খিত ঘটনা কোথাও ঘটুক আমরা তা চাই না। এ নিয়ে প্রধানমন্ত্রী এবং রেল বিভাগও দুঃখ প্রকাশ করেছেন। আমরা চাই, সঠিক রেল ব্যবস্থাপনা গড়ে উঠুক। এ জন্য তদন্ত কমিটিও গঠন করা হয়েছে।

সর্বশেষে ভয়াবহ রেল দুর্ঘটনায় এখন পর্যন্ত কারও গাফিলতির পাওয়া গেছে কি না এমন প্রশ্নে মন্ত্রী জানান, তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। তদন্তে কারও গাফিলতি কিংবা কাজে অবহেলার প্রমাণ পাওয়া গেলে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

দুর্ঘটনাস্থল পরিদর্শন শেষে মন্ত্রী কুলাউড়া স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে দুর্ঘটনায় আহতদের দেখতে যান। সেখান থেকে কুলাউড়া-লাতু রেল লাইন পুন:স্থাপন কাজ সম্পর্কে জানতে কুলাউড়া রেলওয়ে জংশন পরিদর্শন করেন। এসময় মন্ত্রীর সাথে ছিলেন বন পরিবেশ ও জলবায়ু মন্ত্রী মো. শাহাব উদ্দিন।

Comments

comments

পড়া হয়েছে 426 বার
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত