কুলাউড়ায় কিশোরী অপহরণের ঘটনায় পঞ্চায়েত সভাপতি জেল হাজতে

স্টাফ রিপোর্টার,সংবাদমেইল২৪.কম | ২৪ জুলাই ২০১৯ | ৭:৫৬ অপরাহ্ন
অ+ অ-

কুলাউড়ায় চা শ্রমিক কিশোরী অপহরণের ঘটনায় বাগানের পঞ্চায়েত সভাপতিকে জেল হাজতে প্রেরণ করেছে পুলিশ। উপজেলার লোহাইউনি চা-বাগানের রুমি রবি দাস (১৬) নামক এক চা শ্রমিক কিশোরীকে অপহরণের ১০ দিন পর মঙ্গলবার রাতে উদ্ধার করেছে পুলিশ। ঘটনার সাথে জড়িত থাকার দায়ে বাগান পঞ্চায়েতের সভাপতি অজিত কৈরি (৪৫)কে গ্রেফতার করা হয়েছে। ২৪ জুলাই বুধবার অজিত কৈরিকে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

থানায় দায়েরকৃত অভিযোগ থেকে জানা যায়, লোহাইউনি হলিছড়া চা বাগানের রুমি রবি দাসের মা বাবার কাছে বিয়ের প্রস্তাব দেয় একই বাগানের পঞ্চায়েত কমিটির সভাপতি ও ৩ সন্তানের জনক অজিত কৈরী। এতে ওই কিশোরী ও তার মা বাবা পঞ্চায়েত সভাপতির প্রস্তাব প্রত্যাখান করেন। গত ১৪ জুলাই রোববার দুপুর দেড়টার দিকে বোনের বাড়ি মৌলভীবাজারের বর্শিজুড়াতে বেড়াতে যাওয়ার উদ্দেশ্যে ঘর থেকে বের হন রুমি রবি দাস। মৌলভীবাজার-কুলাউড়া সড়কে বাগানের প্রধান ফটকের সম্মুখে বাসের অপেক্ষারত অবস্থায় রুমি রবি দাসকে জোরপূর্বক একটি সিএনজি অটোরিক্সাতে তুলে নিয়ে যায় অজিতসহ ও তার অপর ২ সহযোগি। সন্ধ্যায় বড় মেয়ের কাছে মোবাইলে জানতে পারেন রুমি সেখানে যায়নি।



অনেক খোঁজাখুজি করে রুমিকে না পেয়ে পরদিন স্থানীয় লোকজনের মাধ্যমে মা-বাবা জানতে পারেন বাগানের পঞ্চায়েত কমিটির সভাপতি ও তার দু’সহযোগিরা তাকে অপহরণ করেছে। ঘটনার এক সপ্তাহ পর রুমির মা-বাবা বিষয়টি পুলিশকে অবগত করেন।

রুমির বাবা বাদি হয়ে মঙ্গলবার ২৩ জুলাই রাতে অজিত কৈরীকে প্রধান আসামী করে কুলাউড়া থানায় একটি অপহরণ মামলা (নং ৩২) দায়ের করেন। কুলাউড়া থানার ওসি (তদন্ত) সঞ্জয় চক্রবর্তী ও এসআই মাসুদুল আলম ভুইঞা দু’দিন অভিযান চালিয়ে অপহৃত কিশোরী রুমিকে উদ্ধার করে ও অপহরণের মুলহোতা বাগানের পঞ্চায়েত কমিটির সভাপতি অজিতকে জয়চন্ডী ইউনিয়নের ক্লীভডন চা বাগান থেকে আটক করেন।

ওসি (তদন্ত) সঞ্জয় চক্রবর্তী জানান, মামলার প্রধান আসামী পঞ্চায়েত সভাপতি অজিত কৈরীকে আটক করে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। বাকিদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

Comments

comments

পড়া হয়েছে 58 বার
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত