এসএসসি পরীক্ষার আগের রাতে কুলাউড়ার বরমচালে ওরুশের নামে গান বাজনার আয়োজন

স্টাফ রিপোর্টার,সংবাদমেইল২৪.কম | ০১ ফেব্রুয়ারি ২০২০ | ৬:২৪ অপরাহ্ণ
অ+ অ-

কুলাউড়া উপজেলার বরমচাল ইউনিয়নের উত্তর ভাগ গ্রামে পার্শবর্তী হযরত আনবুলা শাহ রহঃ এর মাজার শরীফ প্রাঙ্গনে শুরু হচ্ছে ওরসের নামে বাদ্যযন্ত্র ও সাউন্ড স্পিকার দিয়ে মহিলা, পুরুষ শিল্পীদের সম্বনয়ে গান বাজনার আসর। এ নিয়ে গত দু দিন যাবত এলাকায় এক উশৃঙ্খল পরিবেশ সৃষ্টি হয়েছে। এ নিয়ে এলাকায় ওরুশ বন্ধের দাবি জানিয়ে গত দুদিন যাবত সোস্যাল মিডিয়ায় নানা রকম লেখালেখি হচ্চে। দেশ বিদেশের সচেতন যুবসমাজ এমন অসামাজিকতার বিরুদ্ধে সোচ্চার হয়ে একমত পোষন করেছেন। কিন্তু আয়োজক কমিটি ওরুশের পক্ষে তাদের অনড় অবস্থান এখনো।

আগামী ৩ ফেব্রুয়ারি সোমবার থেকে শুরু হতে যাচ্ছে এস এস সি ও দাখিল পরীক্ষা। পরীক্ষার আগের রাতে যদি এলাকায় রাত ব্যাপী এমন গানের আসরের আয়োজন করা হয় তাহলে কোমলমতি শিক্ষার্থীরা লেখাপড়ায় মারাত্মকভাবে বিঘœ ঘটবে। কিন্তু পর দিন পরীক্ষা থাকায় তাদের নানা অসুবিধার কথা নিয়ে অভিবাবকরা চিন্তিত হয়ে আছেন।



নাম প্রকাশ করা না শর্তে এক পরীক্ষার্থীর অবিভাবক বলেন পরের দিন সন্তানের পরীক্ষা আর আগের রাতে এমন গান বাজনার অনুমতি প্রশাসন কিভাবে দিলো। আমরা এমন পরিস্থিতির মধ্যে আছি না পারছি বলতে না পারছি সইতে।

এলাকার সামাজিক সংগঠন উত্তর ভাগ সমাজ কল্যান সংস্থার কার্যকরি কমিটির বিভিন্ন নেতৃবৃন্দ বলেন এখন একটা বিষয় সকলের মনে প্রশ্ন জন্ম দিচ্ছে আয়োজক কমিটি কি আদৌ প্রসাশনিক কোনো অনুমোদন পেয়েছে কি না। যদি অনুমোদন নিয়ে থাকে তাহলে প্রশাসন পরীক্ষার পূর্বের রাতে এমন আয়োজনের অনুমতি কিভাবে দিলো।

অপর দিকে যুবসমাজের এক পক্ষ থেকে বলা হয় যদি গানের নামে বহিরাগত মহিলা শিল্পী দিয়ে অশালীন কার্যকলাপ হয় উচ্চ সুরে গান বাজনা হয়ে থাকে তাহলে যুবসমাজ ব্যবস্থা নেবে।

এনিয়ে এলাকায় মানুষের মাঝে উত্তেজনা বিরাজ করছে। উত্তর ভাগ সমাজ কল্যান সংস্থার পক্ষ থেকে বলা হয় আপাতত তাদের আয়োজন চলুক আমরা বাধা দেব না অন্তত কোমলমতি শিক্ষার্থীদের কথা বিবেচনা করে রাতে সবধরনের সাউন্ড সিস্টেম বন্ধ রাখা হয় প্রশাসন যেন সেই ব্যাবস্থা গ্রহণ করে।

কুলাউড়া উপজেলা নির্বাহী অফিসার এটিএম ফরহাদ চৌধুরী বলেন,এসএসসি পরীক্ষাকে সামনে রেখে কোন অবস্থায় উচ্চসুরে বাদ্যযন্ত্র বা মাইক কেউ বাজাতে পারবেনা। বর্তমানে এধরনের কোন অনুমতি আমার প্রশাসনের পক্ষ থেকে দিচ্ছি না। তবে যেহেতু বার্ষিক ওরুশ তাই মাইক ও উচ্চসুরে বাদ্যযন্ত্র ব্যবহার বন্ধ রেখে তাদের কার্যক্রম চালাতে পারবে।

Comments

comments

পড়া হয়েছে 378 বার
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
x