অনুষ্ঠানের সময় মসজিদে আযান,আ’লীগ নেতার বিরক্তি প্রকাশ : সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে সমালোচনার ঝড়

সিলেট প্রতিনিধি,সংবাদমেইল২৪.কম | ৩০ মার্চ ২০১৮ | ৩:০০ অপরাহ্ণ
অ+ অ-

সিলেটের বালাগঞ্জে বোয়ালজুড় ইউনিয়ন পরিষদের আয়োজনে ক্রীড়া প্রতিযোগিতা ও আলোচনা সভা চলাকালে পাশের মসজিদে আযান হওয়ায় বিরক্তি প্রকাশ করেছেন বোয়ালজুড় ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আনহার মিয়া। এ সময় তিনি মাইক্রোফোন হাতে নিয়ে নির্দিষ্ট সময়ের আগে আযান হওয়ায় ক্ষোভ প্রকাশ করেন। তার এই ক্ষোভ প্রকাশের ভিডিওটি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রকাশ পেলে সমালোচনার ঝড় উঠে। এমনকি নিজ দলের নেতাকর্মীরাও ক্ষুব্ধ হয়ে উঠেছেন। ইতোমধ্যে আযান নিয়ে তার ক্ষোভ প্রকাশের ভিডিওটি দেশ-বিদেশে ভাইরাল হয়ে পড়েছে।

ভিডিওটিতে দেখা যায়, স্থানীয় নতুন বাজারে একটি ক্রীড়া প্রতিযোগিতা ও আলোচনা সভা চলছিল। সভা চলাকালিন সময়ে পাশের মসজিদে যোহরের আজান দেয়া হয়।



এসময় আনহার মিয়া বলেন, ‘আদিলকিলামি করওইন, কুনুখানো মিটিং মাটিং দেখলে তারা দেওয়ানা হইযায় আজান দেওয়ার লাগি। কেনে আজান দুই মিনিট আগে দিলো অখানর জয়াব দিতো অইবো। কেনে দুই মিনিট আগে আজান দিলো, অনুষ্ঠান দেখলে দেওয়ানা অই যায়।’

এর পর তিনি মাইক হাতে নিয়ে বলেন, ‘আশ্চর্যের বিষয় হচ্ছে যেকোন জাতীয় অনুষ্ঠানে আজান দিয়ে বাধা দেয়া হয়। এর কারণ হচ্ছে অনুষ্ঠানে বাধা দেয়া। কোনো অনুষ্ঠান হলে এখানে আজানের প্রতিযোগিতা হয়। আমি মসজিদ কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আকর্ষন করছি, কেন দুই মিনিট আগে আজান দেওয়া হলো আমি বুঝলাম না।’

এদিকে ভিডিওটি ভাইরাল হওয়ার পর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ধর্মপ্রাণ মুসলমানদের মধ্যে তীব্র ক্ষোভ সৃষ্টি হয়। বিষয়টি নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় নানান মন্তব্যে বিব্রতকর পরিস্থিতির মধ্যে রয়েছেন দলটির নেতারা। তার এমন কার্যকলাপে দলের ভাবমূর্তি নষ্ট হচ্ছে বলে মন্তব্য করেছেন অনেকে।

Comments

comments

পড়া হয়েছে 474 বার
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
x